• রবিবার, ২৯ জানুয়ারি, ২০২৩
Bengal Links

অভিষেককে নিয়ে কুরুচিকর মন্তব্যের পরেই সাসপেন্ড পুলিশের ইনস্পেক্টর আশিস বটব‍্যালকে

বেঙ্গল লিংকস | নিউজ ডেস্ক

প্রকাশিত: ডিসেম্বর ৫, ২০২২, ০৮:৫৭ পিএম


অভিষেককে নিয়ে কুরুচিকর মন্তব্যের পরেই সাসপেন্ড পুলিশের ইনস্পেক্টর আশিস বটব‍্যালকে

কাঁথিতে তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বক্তব্য রাখার একটি ছবি সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করে বারাসত পুলিশ জেলার ডিআইবি-র এক ইনস্পেক্টর কুরুচিকর মন্তব্য করেন। এই ঘটনার পর সাসপেন্ড করা হয় পুলিশ ইনস্পেক্টর আশিস বটব‍্যালকে। সংবাদমাধ্যম দ্য ওয়ালের একটি প্রতিবেদন অনুযায়ী, জেলা পুলিশ সূত্রে খবর, কর্মক্ষেত্রে গাফিলতির কারনে তাঁকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় অভিষেককে কুরুচিকর মন্তব্যের পরই তিনি বির্তকে জড়িয়েছেন। যদিও পরবর্তী সময় তিনি এই পোস্টটি মুছে দেন। এই ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসতেই রাজনৈতিক মহলে শুরু হয়েছে শোরগোল। ব্যক্তিগত ক্ষোভ না অন্য কোন কারণে অভিষেককে নিয়ে এই পোস্ট তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ছবি ফেসবুকে পোস্ট করে  লিখেছেন, অভিষেক যে চশমা পড়েছে তার দাম কত কোথা থেকে চোখের চিকিৎসা করিয়েছেন তা জনগনকে জানানোর কথা বলেছেন। পোস্টার নীচে কাঁথির সভার ভিডিও ফুটেজ ছিল।

এই ঘটনাটি ফেসবুকে পোস্ট করা এবং পুলিশ অফিসারকে সাসপেন্ড করা নিয়ে রাজনৈতিক মহলে জল্পনা শুরু হয়েছে। তিনি বারাসতে পুলিশ জেলার ডিআইবি ইন্সপেক্টর হিসেবে তিন বছর কর্মরত। যদিও উচ্চতর কর্মকর্তারা এই সাসপেন্ডের কথা স্বীকার করলেও তার কারণ হিসেবে কর্তব্যে গাফিলতির অভিযোগই তুলেছেন। সাসপেন্ড প্রসঙ্গে বিজেপি নেতা দীপ্ত কুমার লস্কর বলেন, পুলিশ আজ দলদাস তকমা থেকে বেরোতে চাইছে, আশীসবাবু সেই কাজটাই করেছেন তাকে কুর্নিশ জানাই। তিনি একজন সৎ পুলিশ অফিসার। বারাসত পুরসভার তৃণমূল কাউন্সিলর দেবব্রত পাল বলেন, উনি অন্যায় কাজ করেছেন, ব্যক্তিগত আক্রোশ থেকে কাউকে এইভাবে আক্রমন করা যায় না।

রাজ্য থেকে আরও খবর